কুয়েত ভিসা চেক করার সহজ নিয়ম ২০২৩।

কুয়েত ভিসা চেক করার সহজ নিয়ম ২০২৩।

আপনি কি কুয়েত ভিসা চেক করতে চান?তাহলে আমাদের আজকের আর্টিকেলে জানুন কিভাবে কুয়েত ভিসা চেক করতে হয় তার বিস্তারিত।

কুয়েত মধ্যে প্রাচ্যের একটি তেল সম্মৃদ্ধ দেশ।বিশ্বের অন্যতম ধনী রাষ্ট্র এটি।পৃথিবীর বিভিন্ন স্থান থেকে এখানে মানুষ পাড়ি জমায়।

বাংলাদেশ থেকেও অনেক মানুষ প্রতি বছর কাজের ভিসায়,টুরিস্ট ভিসা ইত্যাদি ভিসায় কুয়েত যায়।

কুয়েত যাওয়া কিন্তু খুব সহজ।তবে কুয়েত যাওয়ার আগে যেটা প্রধান কাজ সেটা হলো ভিসা চেক করা।কুয়েত যাওয়ার পূর্বে ভিসা চেক বা ভিসার সত্যতা নিশ্চিত করা গেলে পরে প্রতারিত হওয়া লাগে না।কারন বর্তমানে অনেকে ফেইক ভিসার কারনে প্রতারিত হচ্ছে।

তাই চলুন জেনে নেওয়া যাক কুয়েত ভিসা সম্পর্কেঃ

আপনার জন্য প্রয়োজনীয় কিছু পোষ্টঃ

রোমানিয়ার ভিসা চেক করার সব থেকে সহজ নিয়ম ২০২৩।

জাপান ভিসা চেক করার সব থেকে সহজ নিয়ম ২০২৩।

আলবেনিয়ার ভিসা চেক করুন খুব সহজে ২০২৩।

কুয়েত ভিসা চেক

আপনি যদি অনলাইনে কুয়েত ভিসা চেক করতে চান তাহলে আমার দেওয়া এই লিংকে যান। অথবা গুগল Chrome ব্রাউজারে গিয়ে লিখুন moi.gov.kw/main/eservices। সাইটে ভিজিট করার পর Visa Application Number দিয়ে ক্যাপচা কোড পূরণ করে সাবমিট অপশনে ক্লিক করলেই ভিসার সকল স্ট্যাটাস দেখতে পারবেন।

আপনার বুজার সুবিধার্থে স্কিনসর্ট সহকারে ভিসা চেক করার নিয়ম দেখালাম।

ভিসা চেক করার আগে যে ডকুমেন্টসগুলো আপনার লাগবে

  • Visa Application Number
  • আবেদনকারীর পাসপোর্ট নাম্বার
  • Visa Reference Number

এখন জেনে নেই অনলাইনে কুয়েত ভিসা কিভাবে চেক করে

আপনি ঘরে বসেই মোবাইল বা কম্পিউটারের৷ সাহায্যে অনলাইনের মাধ্যমে কুয়েত ভিসা চেক করতে পারবেন। কুয়েত ভিসা চেক করতে নিচের ধাপগুলি অনুসরণ করুন,

See also  অনলাইনে জন্ম তারিখ দিয়ে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার নিয়ম 2023

  • কুয়েত ভিসা চেক করতে প্রথমে আপনাকে আমার দেওয়া এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে।অথবা আপনি Kuwait Visa Check লিখে সার্চ করে সরাসরি ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে পারবেন।
  • ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর ভাষা ইংরেজি সিলেক্ট করে নিবেন।
  • এরপর হোমপেইজের বাম পাশে অনেকগুলোই অপশন দেখতে পারবেন এবং সেই অপশনগুলোর মধ্যে থেকে Visa Application Status সিলেক্ট করে নিবেন।
  • পরের ধাপে আপনাকে Visa Application এর স্থানে আপনার আবেদনের সময় প্রাপ্ত রশিদ থেকে পাওনা Application Number টি লিখবেন।
  • এরপর নিচের বক্সে Captcha text এর স্থান পূরণ করুন।
  • এরপর সব কিছু ঠিক ঠাক থাকলে Submit এ ক্লিক করুন।

Submit এ ক্লিক করার পর আপনার তথ্য যদি সঠিক হয় আপনার ভিসার সকল তথ্য সামনে চলে আসবে।

কুয়েত যেতে কত টাকা খরচ হয়

আমাদের দেশ থেকে অধিকাংশ মানুষ ওয়ার্ক পারমিট ভিসায় কুয়েত যায়। তাই একটু আন্দাজ করলাম আপনি ওয়ার্ক পারমিট ভিসায় কুয়েত যাবেন।

যদি আপনি ওয়ার্ক পারমিট ভিসায় কুয়েত যেতে চান তাহলে কাজের ধরন বুজে ৪-৮ লক্ষ টাকা পর্যন্ত লেগে যাবে।আর শুধু কুয়েত ভিসার মূল্য পড়বে ৫০-৬০ হাজার টাকা।

কুয়েতে বেতন কত?

আপনি যদি কুয়েতে যান প্রথমেই আপনার বেতন সর্বনিম্ন ২০ হাজার পড়বে।তব একজন দক্ষ শ্রমিক কমপক্ষে ৫০-৭০ হাজার পর্যন্তও ইনকাম করে ফেলতে পারবে।

কুয়েতের বেতন নির্ভর করে সম্পূর্ণ কাজ,ক্যাটাগড়ির উপর।একজন শ্রমিক কত সময় ধরে কাজ করে,ওভারটাইম করে তার উপর।

শেষ কথা

আজকের আয়োজনে কুয়েত ভিসা চেক করার সহজ নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা করেছি।এছাড়াও কুয়েত যেতে কত টাকা খরচ হয়,কুয়েতে বেতন কত সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা দিয়েছি।এরপরও যদি কুয়েত ভিসা সম্পর্কে আপনার কোনো কিছু জানার প্রয়োজন পড়ে তাহলে নিচের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে জানান।